Breaking News

অধীনতা- কৃষ্ণচন্দ্র মজুমদার


অধীনতা

কৃষ্ণচন্দ্র মজুমদার

অধীনতা
কৃষ্ণচন্দ্র মজুমদার

কোটকল্প নরকের বাস ইচ্ছা হয়,
পলকের অধীনতা তবু প্রিয় নয়।
অধীনতা-পাশে বাঁধা যাদের চরণ,
কে আর অসুখী বল তাদের মতন?
থাকে থাক গৃহ পূর্ণ বিবিধ রতনে,
অধীন যে জন তার সুখ কোথা মনে?
খায় খায় নানাবিধ খাদ্য পরিকর,
সে কেমনে সুখ পাবে অধীন যে নর?
স্বাধীনের ক্ষুদ্রতর কুটীর ভিতরে,
যেইরূপ নিরমল আনন্দ বিহরে,
অধীনের মনোহর সুচারু আলয়,
তেমন আনন্দময় নয় নয় নয়।
স্বাধীন শাকান্নে পায় তৃপ্তি-সুখ যত,
অধীন পালান্নে সুখ কোথা পাবে তত?
স্বাধীনের যত সুখ মাটির শয্যায়,
অধীনের স্বর্ণ খাটে সে সুখ কোথায়?
বল্কলে আনন্দ যত স্বাধীনের মনে,
অধীনের কোথা তত বিচিত্র বসনে?
অই যে করিছে চাষা ভূমি করষণ,
সহিতেছে খরতর-তপন কিরণ,
তনু বেয়ে ঝর ঝর বহিতেছে জল,
শুকায়েছে পরিশ্রমে বদনমন্ডল,
যত সুখাকর এর স্বাধীন অন্তর,
অধীনের সে সুখ স্বপ্নের অগোচর।
কর্ম কাজ শেষ করি সারাদিন পরে,
ধীরে ধীরে যখন গমন করে ঘরে,
স্নেহময় পরিজন করি দরশন,
মরি কি বিমল সুখে পশে এর মন,
নিরখিয়া তনয়ের মুখ-শশধরে,
উথলে কি সুখসিন্ধু হৃদয় ভিতরে,
পতিপ্রাণা প্রেয়সীর প্রিয় সম্ভাষণ,
অহো! এর মন করে প্রফুল্ল কেমন,
দুখকর অধীনতা-পাশে বাঁধা যারা,
এমন বিশুদ্ধ শুখ কোথা পাবে তারা?
হায় রে! যে প্রকৃতির মূরতি মোহন,
শোকাতুর জনের প্রফুল্ল করে মন,
সে প্রকৃতি অধীনের চিন্তিত হৃদয়,
পুলকিত করিতে সক্ষম কভু নয়।
বাস করি চিরদিন সুখের মহীতে,
অধীন সুখের স্বাদ না পারে বুঝিতে।
সুধা-সিন্ধু-বাসী মান বঞ্চিত সুধায়,
সামান্য আক্ষেপ একি হায় হায় হায়!
পরমেশ প্রয়োজন সাধনের তরে,
দিয়াছেন বিবিধ ইন্দ্রিয় সব নরে,
কিন্তু হায়! এ জগতে অধীন যে জন,
তাহার ইন্দ্রিয় নয় তাহার কখন।
সাধিতেছে সদা তায় প্রভু প্রয়োজন,
হায় রে অধীন! তোর কপাল কেমন।
কত কাল সবে আর এ যাতনা?
অই দেখ পিঞ্জর-নিবাসী পাখীগণ,
কননে উড়িয়া যেতে চঞ্চল কেমন,
ঘুরে ঘুরে করিছে পথের অন্বেষণ,
চঞ্চুপটে কাটিতেছে খাঁচার বন্ধন।
তুমি কেন আপন শৃঙ্খল, কও কও,
মোচন করিতে কিছু সমুতসুক নও?
বনের পাখির কাছে যহা সুখময়,
তোমার কি প্রিয় সেই স্বাধীনতা নয়?
কত দুখ অধীনতা দিতেছে তোমারে,
তবু কেন এত তুমি ভালবাস তারে?
আছে কত স্বাধীন ব্যবসা সুখময়,
কর না কর না কেন সে সব আশ্রয়?
অথবা বিজন বনে করহ গমন,
ফল মূলে কর পোড়া উদর পূরণ,
পিপাসা বারণ কর উনুইর জলে,
যামিনী যাপন কর বসি তরুতলে,
তথাপি রেখনা পায় অধীনতা পাশ,
তার চেয়ে শত গুণে ভাল বনবাস।


==========





আরও কবিতা পড়তে সেরা-কবিতা App ইন্সটল করুন

No comments